কক্সবাজারে ইয়াবাসহ পুলিশ দম্পতি আটক

1502271692-picsa

ইয়াবা পাচারের সময় কক্সবাজারের চকরিয়া থানার এক পুলিশ সদস্য ও তাঁর স্ত্রীকে আটক করেছে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি)। গত সোমবার রাতে তাঁদের আটক করা হয়। এ ঘটনায় গতকাল একটি মামলা হয়েছে।

আটক করা দম্পতি হলেন চকরিয়া থানার পুলিশ সদস্য (কনস্টেবল) মো. এরশাদ আলম (৩০) ও তাঁর স্ত্রী কামরুন নাহার (২২)। এরশাদ আলমের গ্রামের বাড়ি কুমিল্লার বুড়িচং পীর যাত্রাপুর এলাকায়। কামরুন নাহার কক্সবাজার সদরের পিএমখালীর ছনখোলা এলাকার আবদুল হামিদের মেয়ে। টেকনাফের হোয়াইক্যং তল্লাশিচৌকিতে তাঁদের আটক করে বিজিবি।

গতকাল অতি গোপনীয়তা রক্ষা করে আটক দুজনকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়। বিজিবির দায়ের করা মামলাটি টেকনাফ থানার উপপরিদর্শক (এসআই) মো. জয়নাল আবেদীন তদন্ত করছেন বলে জানান টেকনাফ মডেল থানার পরিদর্শক (তদন্ত) শেখ আশরাফুজ্জামান।

আটক মো. এরশাদ আলম চকরিয়া থানার পুলিশ সদস্য বলে তথ্যের সত্যতা নিশ্চিত করেছেন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) বখতিয়ার উদ্দিন চৌধুরী।

মামলার বাদী ২ বিজিবি ব্যাটালিয়নের হাবিলদার মো. হায়দার আলী শেখ এজাহারে বলেছেন, সোমবার রাতে হোয়াইক্যং তল্লাশিচৌকিতে কক্সবাজারগামী নম্বরবিহীন একটি মাইক্রোবাসকে থামানো হয়। মাইক্রোবাসে এরশাদ আলম ও কামরুন নাহার ছিলেন। মাইক্রোবাসটিতে তল্লাশি করার সময় ভেতরে থাকা একটি বাজারের ব্যাগ থেকে ইয়াবাভর্তি ৪০টি প্যাকেট উদ্ধার করা হয়। প্যাকেটগুলো চকলেটের মোড়কে মোড়ানো ছিল। প্যাকেটগুলো থেকে আট হাজার ইয়াবা পাওয়া যায়। এ সময় তাঁদের কাছ থেকে চারটি মুঠোফোন জব্দ করা হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *